রূপগঞ্জে ভয়াবহ আগুনে নিহত ৫২ জনের লাশ নেয়া হচ্ছে ঢাকা মেডিকেল

ইমান২৪.কম: নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে ভয়াবহ আগুন লাগা কারাখানাটি থেকে একের পর এক লাশ বের করা হচ্ছে। নিহতের সংখ্যা এখন পর্যন্ত ৫২ ছাড়িয়েছে। এর আগে দুর্ঘটনার কারণ উদঘাটনে ৫সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করেছে জেলা প্রশাসন।

অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ শামীম বেপারীকে আহবায়ক করে পাচঁ সদস্যবিশিষ্ট এই তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। এদিকে নিহত ৫২ জনের লাশ ঢাকা মেডিকেল কলেজে নেয়া হচ্ছে। নিখোঁজদের খোঁজে স্বজনরা ভির করছে কারখানা বাহিরে। নিহতের বিষয়টি নিশ্চিত করেছে ফায়ার সার্ভিস।

শুক্রবার সকালেও কারখানার চারতলায় আগুন জ্বলতে দেখা গেছে। এর আগে ৭০ থেকে ৮০ জন শ্রমিক এখনও ওই ভবনের ভেতরে রয়েছেন বলে জানিয়েছেন অন্যান্য শ্রমিক ও নিখোঁজের স্বজনরা।

শ্রমিকদের স্বজন ও প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেন, ছয়তলা ভবনটির মধ্যে চতুর্থতলার শ্রমিকরা কেউ বের হতে পারেননি। সিকিউরিটি ইনচার্জ চারতলার কেচি গেটটি বন্ধ করে রাখায় কোনো শ্রমিকই বের হতে পারেননি। সেখানে ৭০ থেকে ৮০ জন শ্রমিক কাজ করতেন।

তারা জানান, চতুর্থতলার শ্রমিকদের ইনচার্জ মাহবুব, সুফিয়া, তাকিয়া, আমেনা, রাহিমা, রিপন, কম্পা রানী, নাজমুল, মাহমুদ, ওমরিতা, তাছলিমাসহ প্রায় ৭০ থেকে ৮০ জন শ্রমিক নিখোঁজ রয়েছেন।

নিখোঁজ শ্রমিকদের স্বজনরা কারখানার সামনে এসে ভিড় করছেন। তাদের আহাজারিতে কারখানার চারপাশ ভারী হয়ে উঠেছে। স্বজনরা অভিযোগ করে জানান, কারখানা কর্তৃপক্ষের অবহেলায় কারখানায় অগ্নিকাণ্ড ঘটেছে। আগুন লাগার পরও কারখানা কর্তৃপক্ষ কেচি গেটের তালা না খোলায় শ্রমিকরা বের হতে পারেননি।

এর আগে বৃহস্পতিবার (৮ জুলাই) বিকেল ৫টার দিকে উপজেলার কর্ণগোপ এলাকায় অবস্থিত ওই কারখানায় আগুন লাগে। এ ঘটনায় দুই নারী শ্রমিকসহ তিন জনের মৃত্যু হয়েছে।

ফেসবুকে লাইক দিন