কাশ্মীরী মুসলমানদের মনবল ভেঙে দিতে ধর্ষণে মেতে উঠেছে ভারতীয় বাহিনী

ইমান টোয়েন্টিফোর ডটকম: নিউইয়র্কভিত্তিক মানবাধিকার সংস্থা হিউম্যান রাইটস ওয়াচ জানিয়েছে কাশ্মীরী মুসলমানদের মনবল ভেঙে দিতে ভারতীয় বাহিনী ধর্ষণে মেতে উঠেছে।

জাতিসংঘ ও অন্যান্য সংস্থার সাম্প্রতিক প্রতিবেদনে আভাস দিয়েছে, কাশ্মীরের লোকজনের মনোবল ভেঙে দিতে নারীদের নিশানা বানিয়েছে ভারতীয় সেনাবাহিনী।

হিউম্যান রাইটস ওয়াচের প্রতিবেদনে বলা হয়, ভারতীয় বাহিনীর হাতে কাশ্মীরি নারীদের ব্যাপক ধর্ষণের অপরাধ নিয়মিতভাবে দায়মুক্তি পেয়ে আসছে।

নারীর বিরুদ্ধে সহিংসতা রোধে বিশ্ব যখন ১৬ দিনের একটি কর্মসূচি বেছে নিয়েছে, তখন মানবাধিকার সংস্থাটি এ খবর দিয়েছে।

পাকিস্তানের প্রভাবশালী গণমাধ্যম ডন অনলাইনের খবরে বলা হয়েছে, গত ২৫ নভেম্বর ওই কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। এ দিনটিকে নারীর বিরুদ্ধে সহিংসতা প্রতিরোধের আন্তর্জাতিক দিবস হিসেবে পালন হয়ে আসছে। ধর্ষণের মতো ঘৃণ্য অপরাধের বিরুদ্ধে বিশ্বকে চলতি বছর ঐক্যবদ্ধ করার প্রত্যাশা করছেন মানবাধিকার কর্মীরা।

গত জুলাইয়ে অধিকৃত কাশ্মীরে ভারতীয় নিরাপত্তা বাহিনীর মানবাধিকার লঙ্ঘনের ঘটনা নথিভুক্ত করেছেন জাতিসংঘের মানবাধিকারবিষয়ক হাইকমিশনার।

যার মধ্যে রয়েছে- বিচারবহির্ভূত হত্যা, বিনাবিচারে আটক, কারা নির্যাতনে মৃত্যু, গুম, নিপীড়ন ও নির্যাতন। এ ছাড়া ধর্ষণসহ যৌন সহিংসতাও রয়েছে।

সশস্ত্র বাহিনীর বিশেষ ক্ষমতা আইন-১৯৯০ অনুসারে কীভাবে ভারতীয় বাহিনীকে অস্বাভাবিক ক্ষমতা দেয়া হয়েছে, প্রতিবেদনে মূলত সেই বিষয়টিই আলোকপাত করা হয়েছে।

তারা নির্বিচারে এ ক্ষমতার ব্যবহার করছে এবং নির্যাতনের সাজা থেকেও তাদের দায়মুক্তির কথা বলা হয়েছে।

ফেসবুকে লাইক দিন