মমতাকে ধাক্কা মেরে ফেলে দেয়া হয়েছে, মাথা-পায়ে চোট

ইমান২৪.কম: মনোনয়ন জমা দিয়ে বুধবার নন্দীগ্রামের বিভিন্ন জায়গায় মন্দিরে মন্দিরে পুজো দিচ্ছিলেন তৃণমূল নেত্রী। তাকে ঘিরে এদিন মানুষের ভিড় ছিল চোখে পড়ার মত।

বুধবার সন্ধ্যায় নন্দীগ্রামের ভাড়া বাড়িতে ফিরছিলেন তিনি। সেই সময়ই আহত হন মুখ্যমন্ত্রী। তাকে ধাক্কা মেরে ফেলে দেয়া হয়েছে বলে

অভিযোগ করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। চক্রান্তের অভিযোগ করেছেন তিনি। জানা গিয়েছে, ভিড়ের মধ্যে নন্দীগ্রামের বিরুলিয়ায় ধাক্কা-ধাক্কিতে মুখ থুবড়ে পড়ে যান মুখ্যমন্ত্রী।

তার পায়ে প্রচণ্ড চোট লেগেছে। গাড়িতে বসে কথা বলতে বলতেই তার চোখে মুখে যন্ত্রণার ছাপ ধরা পড়েছে। চোট এতটাই গুরুতর যে মুখ্যমন্ত্রীকে

তড়িঘড়ি কলকাতায় আনা হচ্ছে। চোটগ্রস্ত অবস্থাতেই গাড়িতে বসে চক্রান্তের অভিযোগ করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সাংবাদিকদের মুখ্যমন্ত্রী বলেছেন,

‘চক্রান্ত করে চার-পাঁচ জন দাক্কা মেরেছে।আমি তাতেই পড়ে গিয়েছি। আমার পা ফুলে গিয়েছে। জেনেশুনে হামলা হয়েছে আমার উপর।

গাড়ির দরজা জোর করে বন্ধ করে দেয়া হল। ঘটনার সময় পুলিশ সুপার বা কোনো পুলিশ ছিল না।

ফেসবুকে লাইক দিন