ভারতকে নিঃশর্ত-সীমাহীন সহায়তা করবে ইসরায়েল

ইমান২৪.কম: সন্ত্রাসবাদ-সহ বিভিন্ন হুমকি মোকাবেলা ও সুরক্ষার জন্য ভারতকে নিঃশর্ত সহায়তার প্রস্তাব দিয়েছে ইসরায়েল। ভারতকে আশ্বাস দিয়ে ইসরায়েল বলছে, তাদের এই সহায়তার কোনো সীমা নেই।

ভারতকে এমন এক সময় ইসরায়েল এ প্রস্তাব দিল যখন জম্মু-কাশ্মীরের পুলওয়ামা জেলায় জঙ্গি হামলা ঘিরে প্রতিবেশী পাকিস্তানের সঙ্গে দেশটির উত্তেজনা চলছে।

জেরুজালেমের মতো সন্ত্রাসবাদের শিকার হলে ভারতকে কীভাবে সহায়তা করবে ইসরায়েল, এমন প্রশ্নের জবাবে ভারতে নিযুক্ত ইসরায়েলের নতুন দূত ডা. রন মালকা এসব কথা বলেছেন।

ডা. রন মালকা বলেন, সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে বিশ্বের লড়াই করা উচিত এবং পারস্পরিক সহযোগিতার মাধ্যমে এর মূলোৎপাটন করতে হবে। আমরা ভারতকে সহায়তা করছি। তাদের সঙ্গে আমাদের জ্ঞান, কৌশল শেয়ার করছি। কারণ আমরা আসলেই আমাদের প্রকৃত গুরুত্বপূর্ণ বন্ধুকে সহায়তা করতে চাই।

এদিকে গত বৃহস্পতিবার ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু-কাশ্মীরের পুলওয়ামা জেলায় পাকিস্তানভিত্তিক জঙ্গিগোষ্ঠী জয়েশ-ই-মোহাম্মদের সদস্যরা হামলা চালায়। দেশটির আধা-সামরিক বাহিনীর (সিআরপিএফ) গাড়ি বহরে ওই হামলায় নিহত হয় অন্তত ৪০ জওয়ান।

এই হামলার পর ইসরায়েলের সন্ত্রাসবিরোধী অভিযানের ন্যায় পাকিস্তানে অভিযান চালানোর দাবি উঠেছে ভারতে। সুনির্দিষ্ট লক্ষ্যে দ্রুত অভিযান চালানোর জন্য বিশেষ পরিচিতি রয়েছে ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর।

চুপ করে বসে থাকবো না, পাল্টা হামলা চালাব: ইমরান খান

চুপ করে বসে থাকবো না, পাল্টা হামলা চালাব: ইমরান খান

কাশ্মীরে পুলওয়ামা হামলায় পাকিস্তানের জড়িত থাকার অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন সে দেশের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান।

হামলায় দায় অস্বীকার করে মঙ্গলবার ইমরান খান বলেন, কোনো প্রমাণ ছাড়াই এসব অভিযোগ করছে ভারত।

এ সময় তিনি আলোচনার মাধ্যমে সমস্যা সমাধানের প্রস্তাব দেন। অন্যথায় ভারত হামলার পথে এগুলো পাকিস্তানও যে চুপ করে বসে থাকেব না এ কথাও স্পষ্ট জানিয়ে দেন তিনি।

ইমরান খান বলেন,‘ তোমরা (ভারত) কোনো প্রমাণ ছাড়াই পাকিস্তান সরকারকে দোষারোপ করছো। তোমাদের কাছে যদি এই অভিযোগের কোনো প্রমাণ থাকে তাহলে আমরা এ বিষয়ে ব্যবস্থধা নেব।’

পুলওয়ামা হামলার দীর্ঘ ৫ দিন পর এই প্রতিক্রিয়া জানালেন ইমরান খান। ওই হামলায় ৪৪ ভারতীয় সেনা নিহত এবং আরো ৪১ জন আহত হয়। এই হামলার পিছনে পাকিস্তানভিত্তিক জঙ্গি গোষ্ঠী জয়স-ই মোহাম্মদের হাত রয়েছে বলে দাবি করেছে ভারত। এর বদলা নিতে পাকিস্তানে পাল্টা হামলার দাবি করেছেন ভারতের বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামরিক নেতারা।

এর প্রেক্ষিতে ইমরান বলেন, ‘আমাদের দেশ থেকে কোনো রকম সহিংসতা যাতে ছড়িয়ে না পড়তে পরে আমরা সেদিকে গুরুত্ব দিচ্ছি। আমি ভারত সরকারকে বলতে চাই, তোমাদের কাছে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে কোনো প্রমাণ থাকলে বলো, আমরা ব্যবস্থা নেব।’

‘ভারতে হামলা করে আমাদের কি লাভ? আর পাকিস্তান কেন এ রকম কাজ করবে যখন সে নিজের স্থিতিশীলতা রক্ষার জন্য চেষ্টা করে যাচ্ছে। আমরা এখন নতুন পাকিস্তান গড়ে তোলার চেষ্টা করছি।’ বলেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী।

ইমরান খান আরো বলেন, ‘তারপরও ভারত যদি প্রমাণ দিতে পারে এ হামলায় পাকিস্তান জড়িত, তাহলে আমি নিশ্চয়তা দিচ্ছি সবরকম ব্যবস্থা নেব।’

এরপরই তিনি ভারতের পাকিস্তানে হামলা করার হুমকির প্রসঙ্গটি টেনে এনে বলেন, ‘তোমরা (ভারত) যদি মনে কর আমাদের হামলা করবে আর আমরা চুপ করে বসে থাকবো তাহলে ভুল ভেবেছ। আক্রান্ত হলে আমরাও পাল্টা হামলা চালাব। কিন্তু আমরা জানি যুদ্ধ শুরু করাটা মানুষের হাতে, কিন্তু এর শেষ কবে হবে তা কেবল আল্লাহই বলতে পারে। তাই এই ইস্যুটি সংলাপের মাধ্যমেই সমাধান করা উচিত।’

এর আগে পাক প্রধানমন্ত্রী ভারত পাকিস্তানের মধ্যকার উত্তেজনা কমাতে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের হস্তক্ষেপ চেয়েছিলেন।

আরও পড়ুন:  ইমরান-সালমান বন্ধুত্ব, মোদির কপালে ভাঁজ

চুপ করে বসে থাকবো না, পাল্টা হামলা চালাব: ইমরান খান

হামলার জবাব দিতে কতটুকু প্রস্তুত ভারতের সেনাবাহিনী?

ভারত-পাকিস্তান সিমান্ত রণসাজে সজ্জিত, ৬০০ ট্যাংক পাঠালো পাকিস্তান

আবারও ব্যাপক সংঘর্ষ কাশ্মীরে, ভারতীয় বাহিনীর মেজর-সহ নিহত ৫

জাপানি নারীর ইসলাম গ্রহণের হৃদয়বিধারক ঘটনা ও পর্দার প্রতি সন্মান

ফেসবুকে লাইক দিন