পাকিস্তানের দিকে কুদৃষ্টি দিলে চোখ উপড়ে ফেলা হবে: মাও. ফজলুর রহমান

ইমান২৪.কম: পাক-ভারত চলমান উত্তেজনার বিষয়ে ভারতের কঠিন সমালোচনা করে পাকিস্তান জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের আমির ও মজলিসে মুত্তাহাদা আমেলার প্রধান মাওলানা ফজলুর রহমান বলেছেন, পাকিস্তানের দিকে যারা কুদৃষ্টি দেবে,তাদের চোখ উপড়ে ফেলা হবে। দেশের অস্তিত্ব রক্ষার্থে পুরো জাতি সেনাবাহিনীর সঙ্গে রয়েছে।

আসন্ন ওআইসির বৈঠকে ভারতকে আমন্ত্রণ জানানো ইসলামিক দেশগুলোর বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র বলেও জানান পাকিস্তানের প্রভাবশালী এ ধর্মীয় রাজনীতিবিদ।

বৃহস্পতিবার খতমে নবুওয়াত মার্চে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি ইমরান খান সরকারেরও কড়া সমালোচনা করেন।

অশান্ত পাকিস্তানে শান্তির জন্য নতুন করে নির্বাচন প্রয়োজন দাবি করে মাওলানা ফজলুর রহমান বলেন, যদি দেশে স্থিতিশীলতা চান, তাহলে নতুন করে নির্বাচন দিতে হবে। আর এ নির্বাচনে যদি ভোট চুরি করা হয়, তাহলে দেশের জনগণই তা প্রতিহত করবে।

কাদিয়ানিদের রাষ্ট্রীয়ভাবে পৃষ্ঠপোষকতা দেওয়া হচ্ছে অভিযোগ করে মাওলানা ফজলুর রহমান বলেন, যুক্তরাজ্য থেকে কাদিয়ানি নেতারা এসে সরকারি প্রটোকল পায়, এবং রাষ্ট্রের দায়িত্বশীলদের সঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ মিটিং করে। কাদিয়ানিদের বিরুদ্ধে যদি আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া না হয়, তাহলে আমরা কঠিনভাবে তাদের প্রতিহত করব।

ভারতের সঙ্গে চলমান যুদ্ধাবস্থার মধ্যেই ইমরান খান সরকারের কঠোর সমালোচনা করেন মাওলানা ফজলুর রহমান। পাকিস্তানের গুরুত্বপূর্ণ এ নেতা বিগত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে অংশ নিয়ে তৃতীয় হয়েছিলেন। অবশ্য নির্বাচনে জালিয়াতি হয়েছে বলে ফল প্রত্যাখ্যান করেছেন ধর্মীয় দলগুলোর সম্মিলিত জোট মজলিসে মুত্তাহাদা আমেলা।

আরও পড়ুন:  জামাত-ই-ইসলামিকে নিষিদ্ধ করল ভারত সরকার

সৌদি ভার্সিটিগুলোতে কওমি সনদ গ্রহণের অনুরোধ জানিয়েছেন ধর্মপ্রতিমন্ত্রী

ইমরান খানের সমালোচক ছিলাম, এখন ভক্ত হয়ে গেলাম: ভারতীয় বিচারপতি

বাবা-মাকে নিয়ে থাকলে বাসা ভাড়া কম ৫০০, যা বললো আলোচিত বাড়ির মালিক

শত্রুদের প্রতি সদয় হওয়া, ভালো ব্যবহার করা আল্লাহর রাসূলের নির্দেশ: পাক সেনা কর্মকর্তা

ফেসবুকে লাইক দিন