‘জীবনে আর কখনও ভোটে দাড়াবোনা’ বলে পানিতে ডুব দিলেন পরাজিত প্রার্থী

ইমান২৪.কম: জীবনে আর কখনও ভোট করবেন না বলে কান ধরে উঠবস করলেন কাউন্সিলর পদে নির্বাচন করা এক প্রার্থী। তার নাম মোকলেছুর রহমান। তিনি গত ১৬ জানুয়ারি অনুষ্ঠেয় মেহেরপুরের গাংনী পৌরসভা নির্বাচনের ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে শোচনীয় পরাজয় বরণ করেছেন।

আজ সোমবার (১৮ জানুয়ারি) দুপুরে বাড়ির পাশের খালের পানিতে নেমে কান ধরে উঠবস করে তিনি এ শপথ করেন। এই ঘটনার ৫২ সেকেন্ডের একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওতে দেখা গেছে, শীতের সকালে ঠান্ডা পানিতে কান ধরে পানিতে ডুব দিচ্ছেন মোকলেছুর রহমান।

এসময় তিনি বলছেন, ‘আর জীবনে বেঁচে থাকা পর্যন্ত কমিশনার ভোট আর করবো না, করবো না, করবো না।’ এসময় তিনি ঠান্ডা পানিতে সাতটি ডুব দিয়ে আর কখনও ভোট না করার প্রতিজ্ঞা করেন। এ প্রসঙ্গে পরাজিত প্রার্থী মোকলেছুর রহমান বলেন, সবাই আমাকে নির্বাচনে দাঁড় করিয়েছে।

শেষ পর্যন্ত দেখলাম টাকার কাছে সবাই বিক্রি হয়ে গেছে। ভোটের আগের দিন দুপুরবেলা পর্যন্ত আমার ভোট ছিল। দুপুরের পর বিক্রি হয়ে আমার ভোট আর নেই। দেখছি হাজারের নোট সবার পকেটে পকেটে চলে গেল। আর আমার ভোট উল্টে গেল।

এতে মানুষের মনোভাব আমি বুঝতে পেরে আমি ভোট না করার তওবা করলাম। বুঝলাম ভালো লোকের জন্য ভোট না। উল্লেখ্য, শনিবার (১৬ জানুয়ারি) গাংনী পৌরসভার সাধারণ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এতে মেয়র পদে পাঁচ ও কাউন্সিলর পদে ৪০ প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। তবে নির্বাচনে মোকলেছুর ভোট পান মাত্র ১২৫ টি। তার জামানত বাজেয়াপ্ত করেছে নির্বাচন কমিশনার।

ফেসবুকে লাইক দিন