জাতীয় সঙ্গীত গাইতে অস্বীকার করায় শিক্ষককে মারধোর

ইমান২৪.কম: সাধারনতন্ত্র দিবসে জাতীয় সঙ্গীত গাইতে অস্বীকার করায় ভারতের এক মুসলিম শিক্ষককে এলাকার লোকজন বেধড়ক মারধোর করেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের বিহার রাজ্যের কাটিহার জেলার আবদুল্লাপুরের এক স্কুলে। ওই শিক্ষকের নাম আফজাল হুসাইন।

জানা গিয়েছে, গত ২৬ জানুয়ারি ভারতের সাধারনতন্ত্র দিবসের দিন জাতীয় পতাকা উত্তোলনের পর ভারতের জাতীয় সংগীত বন্দেমাতরম গাইতে অস্বীকার করেন শিক্ষক আফজাল। তখনই তার উপর ঝাঁপিয়ে পড়েন স্থানীয়রা। তাকে বেধড়ক মারধোর করা হয় বলেও অভিযোগ উঠেছে।

আফজাল হুসাইন বলেন, ‘আমি ইসলাম ধর্মে বিশ্বাসী, আমার ধর্ম আমাকে বন্দে মাতরম গাওয়ার সম্মতি দেয় না। তাছাড়া ভারতের সংবিধানে কোথাও লেখা নেই আমাকে বন্দে মাতরম গাইতেই হবে। সেদিন আমার উপর যেভাবে হামলা হয়েছিলো, তাতে আমার প্রাণও চলে যেতে পারতো।’

তবে ওইদিনের ঘটনা প্রসঙ্গে বিহারের কাটিহার জেলার শিক্ষা আধিকারিক দীনেশ চন্দ্র দেব জানান, এই ধরনের ঘটনার কোনো অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করা হবে।

অন্যদিকে এই ঘটনায় বিহারের শিক্ষামন্ত্রী কে এন প্রসাদ জানান, ভারতের জাতীয় সঙ্গীতকে অপমান করার অধিকার কারোরই নেই। এই রকম কেউ করে থাকলে তাকে ক্ষমা করা হবে না।

আরও পড়ুন:  কঠোর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দিল ঐক্যফ্রন্ট

এখন বিজ্ঞাপন দিয়েও কাজের মানুষ পাওয়া যায় না: সমাজকল্যাণমন্ত্রী

গত এক মাসে ৫২ টি ধর্ষণ, ২২টি গণধর্ষণ এবং ৫টি ধর্ষণের পর হত্যা

৩৩ বছর ধরে এমপিওভুক্ত, ১৪জন শিক্ষক থাকলেও নেই কোনো ছাত্র

ইজতেমা মাঠের কাজ শুরু, দ্বিধাদ্বন্দ্ব ভুলে ময়দানে শরিক হওয়ার আহ্বান মুরব্বিদের

এখন থেকেপুলিশের বিরুদ্ধেও অভিযোগ করা যাবে সরাসরি, খোলা হয়েছে কমপ্লেইন সেল

ফেসবুকে লাইক দিন