চা-বিস্কুট খাইয়ে মধ্যরাতে চালকদের থেকে ‘মহামূল্যবান ঘুষ’ নেয় পুলিশ!

ইমান২৪.কম: রিফ্রেশমেন্ট পয়েন্টে চালকদের মুখ ধোয়ার জন্য রাখা হয় গরম পানি। সঙ্গে চা-বিস্কুট। এই সেবা সেবা চালু করেছে রাঙ্গুনিয়া-রাউজান সার্কেল ও এসএসপি আনোয়ার হোসেন (শামীম আনোয়ার)।

রাত্রিকালীন সড়ক দুর্ঘটনার কারণ অনুসন্ধানেই উঠে আসে চালকদের ঘুমঘুম চোখে গাড়ি চালানোর দায়। তাই মধ্যরাতে চালকদের ঘুম দূর করতে ‘রিফ্রেশমেন্ট পয়েন্ট’ ব্যবস্থা করেছেন তিনি। তবে এই চা-বিস্কুট খাওয়ানোর বিনিময়ে ‘ঘুষ’ নেন পুলিশ। তবে এই ‘ঘুষ’ টাকা না।

টাকার চেয়েও মহামূল্যবান ‘ঘুষ’ নেওয়া হয় চালকদের কাছ থেকে। তা হলো চালকদের হাসি ও ভালোবাসা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে একটি ভিডিও শেয়ার করে এমনি এক স্ট্যাটাস দেন চালকদের জন্য ‘রিফ্রেশমেন্ট পয়েট’ চালুকারী এএসপি আনোয়ার হোসেন। যা মুহূর্তে ভাইরাল হয়।

আনোয়ার হোসেন (শামীম আনোয়ার) তার ফেসবুকে বলেন, ‘চালকদেরকে চা-বিস্কিট খাওয়ানোর আড়ালে আমরা নাকি প্রকৃতপক্ষে ঘুষের লেনাদেনা করার উদ্দেশ্যেই রাত্রিবেলা রাস্তায় নামি! নানান ছলচাতুরীর আড়ালে তাদের কাছ থেকে হাতিয়ে নেই মোটা অংকের অর্থ!

তিনি আরও বলেন, কথা একেবারে মিথ্যেও নয়। ঘুষ হিসেবে টাকা না নিলেও মহামূল্যবান ঘুষ হিসেবে আমরা গ্রহণ করি চালক ভাইদের টুকরো টুকরো হাসি আর নিখাদ ভালবাসা। ভিডিওতে দেখুন, কি অসাধারণ আমাদের ঘুষ গ্রহণ প্রক্রিয়া। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত শুধু এই ঘুষগুলোই খেয়ে যেতে চাই বারবার, বহুবার।’

ফেসবুকে লাইক দিন