গুজরাটের নিকটবর্তী পাকিস্তানী বিমানবন্দরে চীনের যুদ্ধবিমান, ঘুম হারাম ভারতের

ইমান২৪.কম: চীন ক্রমাগত সীমান্ত এলাকায় নিজের ক্ষমতা বৃদ্ধি করেই চলেছে, এতে উদ্বিগ্ন ভারত।

সীমান্ত এলাকায় বিভিন্ন জায়গায় গ্রাম গড়ে তুলতেও শুরু করে দিয়েছে চীন সরকার। পূর্ব লাদাখে সীমান্ত বিবাদের আগুন ঠাণ্ডা হওয়ার আগেই আবারও নিজেদের রূপ দেখাতে শুরু করে দিয়েছে চীন সরকার।

চীনের মিত্র দেশ পাকিস্তানের সঙ্গে হাত মিলিয়ে ভারতকে চাপে ফেলার কৌশল করেছে চীন। পাকিস্তানের সেনাদের সঙ্গে যুদ্ধের মহড়া দিচ্ছে চাইনিজ সেনারা।

হিন্দুস্তান টাইমস এক প্রতিবেদনে জানায়, ভারতের বিরুদ্ধে একযোগে ঝাঁপিয়ে পড়তে হাত মিলিয়েছে চাইনিজ এবং পাকিস্তানী সেনা। চলছে একযোগে সেনা প্রশিক্ষণও। সেই কারণে ভারতের গুজরাটের নিকটবর্তী পাকিস্তানী বিমানবন্দরে যুদ্ধবিমান এবং প্রচুর পরিমাণে সেনা পাঠিয়েছে চীন সরকার।

এই বিষয়ে চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মি জানিয়েছে, অভ্যাস শাহিন ১১-এর অনুশীলনে অংশ নিতে পাকিস্তানের ভোলারীতে পৌঁছানোর জন্য চীনের বিমানসেনারা, ইতিমধ্যেই পাকিস্তানগামী বিমানে উঠে পড়েছে।

ভারতের সঙ্গে সীমান্ত বিবাদে লিপ্ত হওয়ার পর থেকে পাকিস্তানের সঙ্গে বন্ধুত্ব আরও জোরদার করে নিয়েছে চীন।

চীন এবং পাকিস্তানের সেনাবাহিনীর মধ্যেকার সম্পর্ক মজবুত করতে ডিসেম্বর মাসের শেষ পর্যন্ত পাকিস্তানে চলবে দুই দেশের সেনাদের যুদ্ধের মহড়া।

ফেসবুকে লাইক দিন