গান গা’ইতে না পারায় ৫ম শ্রেণীর ছাত্রকে ৩০০ বার কানধরে উ’ঠবস করালেন শিক্ষক

ইমান২৪.কম: শি’ক্ষকের নির্দেশে শ্রেণীকক্ষে গান গাইতে না পারায় ৫ম শ্রেণীর এক শিক্ষার্থীকে ৩শ’ বার কানধরে উঠবস করিয়েছে শিক্ষক। বুধবার নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার রামাগাড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা সাইদুল ইসলাম। বিদ্যালয়টির বিজ্ঞান শিক্ষক দীপেন্দ্রনাথ সরকার ক্লাস চলাকালীন সময়ে ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীকে গান পরিবেশন করতে বলেন।

কিন্তু ওই শিক্ষার্থী জাতীয় সঙ্গীত ছাড়া আর কোনো গান পারে না বলে জানায়। তবে, শিক্ষক দীপেন্দ্রনাথ জানান যে জাতীয় সঙ্গীত বাদে অন্য গান গাইতে হবে। তবে শিক্ষক দীপেন্দ্রনাথ সরকার জাতীয় সঙ্গীত বাদে অন্য গান গাইতে বলেন।

পড়ে গান গাইতে না পারায় জোড়া বেত নিয়ে ওই শিক্ষার্থীকে মা’রতে উদ্ধত হন তিনি। এতে ভ’য় পেয়ে ওই শিক্ষার্থী তাকে না মা’রার অনুরোধ করে। তাই বিকল্প শাস্তি হিসেবে ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীকে ৩শ’ বার কানধরে উঠবস করতে বলেন শিক্ষক।

বাড়ি ফিরে অসুস্থ হয়ে পড়লে ওই শিক্ষার্থী তার মাকে ঘটনা খুলে বলে। শিক্ষার্থীর মা নাজমা বেগম ওই স্কুলেরই প্রধান শিক্ষক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। পরদিন সকালে স্কুলে গিয়ে তিনি এ ব্যাপারে জানতে চাইলে অভিযুক্ত শিক্ষক দীপেন্দ্রনাথ তার সাথেও দুর্ব্যবহার করেন।

এ ব্যাপারে নাজমা বেগম বলেন, ‘প্রায়ই শিক্ষার্থীদের সাথে অমানবিক আচরণ করে থাকেন অভিযুক্ত ওই শিক্ষক। বার বার আমি এবং স্কুলের অন্যান্য শিক্ষকরা তাকে সতর্ক করলেও তা কর্ণপাত করেননি তিনি।

বুধবারের ঘটনাটির মাত্রা ছাড়িয়ে যাওয়ায় উপজেলা সহকারী শিক্ষক কর্মকর্তাকে বিষয়টি অবহিত করা হয়।’ অন্যদিকে অভিযুক্ত শিক্ষক দীপেন্দ্রনাথ সরকার বলেন, ‘রাফি নিজেই কান ধরে উঠবস করতে চে’য়েছিল।’

ফেসবুকে লাইক দিন