কথিত ‘হারকিউলিকস’কে খুঁজছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

ইমান২৪.কম: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, হারকিউলিস নামধারী ধর্ষণে অভিযুক্তদের হত্যাকারী যেই হোক না কেন তাকে খুঁজে বের করা হবে। শুক্রবার রাজধানীর লালমাটিয়ার এক স্কুলে মুক্তিযোদ্ধাদের সনদ বিতরণ অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, কোনো হত্যাকাণ্ডই রাষ্ট্র কিংবা সরকারের কাম্য নয়। এই হারকিউলিস লাগিয়ে যারা হত্যাকাণ্ড করছেন আমি মনে করি তারাও ভালো কাজ করছেন না। আইনেই হাতে তাদের সোপর্দ করাই উচিত ছিল।

তিনি বলেন, ধর্ষণ জঘন্য অপরাধ। ধর্ষকেরা সমাজের শত্রু। তবে তাদের এই কায়দায় হত্যার নিন্দা জানাচ্ছি। হারকিউলিস নামে যারা হত্যা করছে তারা ভালো কাজ করছে না। এটা আইনসম্মত নয়।

হারকিউলিসের ব্যাপারে এখন পর্যন্ত কোনো সূত্র পাওয়া গেছে কি না জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, যে কয়েকটি ঘটনা ঘটেছে সেগুলো আমরা দেখছি। নিশ্চয় কিছু না কিছু পাব।’ এ সময় সাংবাদিক দম্পতি সাগর-রুনি হত্যাকাণ্ডের আট বছর হতে চলল জানালে মন্ত্রী বলেন, ‘হবে হবে। সে রহস্যও উন্মোচন হবে ইনশা আল্লাহ।’

এর আগে ঝালকাঠির রাজাপুরে ধর্ষণে অভিযুক্ত রাকিব নামে এক বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়ার মৃতদেহে খুনি হিসেবে ‘হারকিউলিস’ এর নাম পাওয়া যায়। তার মৃতদেহে একটি চিরকুটে লেখা থাকে ‘আমি পিরোজপুরের ভান্ডারিয়ার স্কুলছাত্রীর ধর্ষক রাকিব। ধর্ষণের পরিনতি ইহাই। ধর্ষকরা সাবধান। হারকিউলিস।’

তার আগে একই অভিযোগে অভিযুক্ত সজল নামে আরেক জনের মৃতদেহেও চিরকুট মেলে। সজলের লাশে লেখা ছিল ‘আমার নাম সজল…মাদ্রাসাছাত্রীকে ধর্ষণ করার কারণে আমার এই পরিণতি।’

তার আগে সাভার থেকে আরেক ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করা হয়, যার মৃতদেহেও ধর্ষণের স্বীকারোক্তিমূলক চিরকুট মেলে।

আরও পড়ুন:  কঠোর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দিল ঐক্যফ্রন্ট

এখন বিজ্ঞাপন দিয়েও কাজের মানুষ পাওয়া যায় না: সমাজকল্যাণমন্ত্রী

০১৫৩৭-৭০৭০৭০ নম্বরে সার্বক্ষণিক পাওয়া যাবে ধর্ম প্রতিমন্ত্রীকে

দুর্নীতিবাজ রাঘব বোয়ালদের ছেড়ে শিক্ষকদের নিয়ে ব্যস্ত দুদক: হাইকোর্ট

বিনা টিকেটে ঢুকতে না দেয়ায় পুলিশের স্টলে ছাত্রলীগের ভাংচুর-লুটপাট

এখন থেকেপুলিশের বিরুদ্ধেও অভিযোগ করা যাবে সরাসরি, খোলা হয়েছে কমপ্লেইন সেল

ফেসবুকে লাইক দিন