এরদোগানকে ফোন করে কি বললেন সৌদি যুবরাজ?

ইমান২৪.কম: সাংবাদিক জামাল খাশোগির হত্যার তদন্তের বিষয়ে বুধবার সন্ধ্যায় তুর্কি প্রেসিডেন্ট রজব তায়্যিব এরদোগানের সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেছেন সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান।

ফোনালাপে খাশোগির হত্যার মূল রহস্য উদঘটনের জন্য দু’দেশ যৌথভাবে কাজ করার অঙ্গীকার ব্যক্ত করা হয়।

২ সেপ্টেম্বর সৌদি কনস্যুলেট ভবনের মধ্যে খাশোগিকে হত্যার পর এই প্রথম ফোনালাপ করলেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট ও সৌদি যুবরাজ।

এর আগে বাদশা সালমান বিন আব্দুল আজিজের সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে কয়েকবার ফোনালাপ করেন এরদোগান যেখানে দু’দেশের যৌথ ওয়ার্কিং কমিটি গঠনে সম্মত হওয়ায় তুরস্ককে ধন্যবাদ জানান সৌদি বাদশা।

প্রিন্স সালমান এক বিবৃতিতে জানান যে তিনি তুর্কি প্রেসিডেন্টের সঙ্গে খাশোগি বিষয়ে একত্রে কাজ করতে বদ্ধপরিকর।

প্রিন্স সালমান বলেন যে খাশোগির হত্যা একটি “জঘন্য অপরাধ” যা কোনোভাবেই “সমর্থনযোগ্য নয়।” তিনি আরও বলেন এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত সব অপরাধীদের শাস্তি দেয়া হবে এবং তদন্তের “ফলাফল পৌঁছাতে” সৌদি আরব ও তুরস্ক একসঙ্গে কাজ করবে।

তিনি এই হত্যাকাণ্ডকে ‘বেদনাদায়ক’ হিসেবে আখ্যায়িত করে বলেন যে বিষয়টির ব্যাপারে “ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা করা হবে।”

আরও পড়ুন: 

রাতের আঁধারে শাড়ি-লুঙ্গি-মিষ্টি নিয়ে বাড়ি বাড়ি আ.লীগের এমপি জগলুল

কওমি সনদের স্বীকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীকে সংবর্ধনা নয়, হবে শুকরিয়া মাহফিল

জামায়াতে ইসলামীকে নির্বাচন থেকে দূরে রাখার কোনো আইন নেই: ইসি সচিব

ফেসবুকে লাইক দিন