‘কমান্ডো’: শোবিজে ভারতের গোয়েন্দা বোমা!

ইমান২৪.কম: ভারতে সাম্প্রদায়িকতা, উগ্রতা ও সংখ্যালঘু নির্যাতন হয় মাঠে ময়দানে। বাংলাদেশে সাম্প্রদায়িকতা, উগ্রতা ও সংখ্যালঘু নির্যাতনের খবর ছড়ায় মিডিয়ায়। বাস্তব ময়দানে তেমন কিছু না ঘটলেও মিডিয়ার ময়দান জুড়ে এদেশে ইসলাম ও মুসলমানকে ভিলেন হিসেবে উপস্থাপন করা হয়।

বিজেপির উত্থান কালে তসলিমা নাসরিনকে দিয়ে ‘লজ্জা’র মতো উপন্যাস লেখানো হয়েছিল। ভারতে যখন মুসলমানদের কচুকাটা করা হচ্ছিল তখন এই বইয়ে তসলিমা দেখিয়েছে বাংলাদেশে হিন্দুদেরকে ব্যাপক নির্যাতন করা হচ্ছে।

বিজেপি ও ভারতীয় গোয়েন্দা সংস্থার উপহার-উপঢৌকন এ কাজের পেছনে ছিল বলে অনেক তথ্য পরে সামনে এসেছে। বর্তমানে বাংলাদেশের উগ্রতা বিরোধী সিনেমা বানানোর মানে গোটা ভারত জুড়ে মানবতাবিরোধী সাম্প্রদায়িকতাকে চাপা দিয়ে বাংলাদেশকে আবারো এক্ষেত্রে ভিলেন হিসেবে দেখানো।

এখানে বিজেপি স্বার্থ, ‘র’-এর স্বার্থ, মুসলিম দমনমূলক উগ্র হিন্দু স্বার্থ প্রতিষ্ঠার একটা ভয়ংকর খেলা আছে! খেলা এই একটি সিনেমা দিয়েই হচ্ছে না, মিডিয়ার খবর, নাটক, বিনোদন-সংস্কৃতি, শিল্প, শোবিজ এবং পতিত বুদ্ধিবৃত্তির ক্ষেত্রগুলোতে ব্যাপকভাবে হচ্ছে।

কোনো কোনোটা চোখে পড়ে যাচ্ছে ‘কমান্ডো’ সিনেমার মতো। সাংস্কৃতিক, গণমাধ্যমগত এবং গোয়েন্দা ও প্রতিরক্ষা স্বার্থসংশ্লিষ্ট এজাতীয় দুষ্ট শিল্প প্রবণতা রুখে দেওয়ার সর্বাত্মক উদ্যোগ দরকার। সব মহলে, সব সময়।

ফেসবুকে লাইক দিন