চীনের উইঘুর মুসলিমদের উপর নির্যাতন তদন্তের দাবি জানিয়েছে ৩৯ দেশ

ইমান২৪.কম: সংখ্যালঘু উইঘুর মুসলিমদের জোর করে বন্দিশিবিরে আটকে রেখে চীন প্রশিক্ষণ দেওয়ার যে কথা বলছে, তা নিরপেক্ষভাবে তদন্তের জন্য দ্রুত দেশটির পশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশ জিনজিয়াং পরিদর্শনের অনুমতির দাবি জানিয়েছে জাতিসংঘের সদস্য ৩৯ দেশ।

জাতিসংঘে নিযুক্ত জার্মান রাষ্ট্রদূত ক্রিস্টোফ হিউসজেন বলেন, চীনের জিনজিয়াংয়ে উইঘুর মুসলিমদের পাশাপাশি হংকংয়ে আন্দোলনকারীদের ওপরও দমন-পীড়ন ও নির্যাতন চালাচ্ছে চীন। খবর আনাদোলু এজেন্সির।

তিনি বলেন, উইঘুর নির্যাতনের ঘটনা তদন্তে জাতিসংঘের মানবাধিকার কমিশনসহ নিরপেক্ষ তদন্ত কমিটিকে চীনে যেতে দেওয়ার অনুমতি দাবি করে করেন। চীনের ওই প্রদেশের ৪৫ শতাংশ বাসিন্দা উইঘুর মুসলিম।

জার্মানি ছাড়াও চীনে উইঘুর নির্যাতনের ঘটনা তদন্তের দাবি জানিয়েছে আমেরিকা, বৃটেন, কানাডা, জাপান, নরওয়ে ও সুইৎজারল্যান্ডসহ আরও ৩৮ দেশ।

এর আগে গত মাসে ব্রিটেনে নিযুক্ত চীনের রাষ্ট্রদূত লিউ শিয়াও মিংয়ের কাছে উইঘুর মুসলিমদের ওপরে কয়েক দশক ধরে চলা চীনা নির্যাতন-নিপীড়ন অবিলম্বে বন্ধের দাবি জানিয়ে চিঠি পাঠিয়েছেন ১৩০ ব্রিটিশ এমপি।

চিঠিতে বেইজিংয়ের বিরুদ্ধে ‘জাতিগত’ নিধনের অভিযোগ তোলা হয়েছিল। ব্রিটিশ এমপিরা চিঠিতে লিখেছেন– ‘উইঘুর মুসলিমদের প্রতি চীন যে আচরণ করে চলেছে তা অবশ্যই জাতিগত নির্মূলের উদ্দেশে করা হয়েছে।

ফেসবুকে লাইক দিন