আবার হা’মলা হলে একজন ইসরাইলি সেনাও নিরাপদ থাকবে না: হিজবুল্লাহ’র হুঁ’শিয়ারি

ইমান২৪.কম: লেবাননের ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন হিজবুল্লাহ ই’হুদিবাদী ইসরাইলের প্রতি হুঁ’শিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছে, এরপর তেল আবিব আবার লেবাননে আগ্রাসন চালালে প্রতিটি ইসরাইলি সেনার জীবন ঝুঁকির মধ্যে পড়বে। হিজবুল্লাহ মহাসচিব সাইয়্যেদ হাসান নাসরুল্লাহ সোমবার রাতে টেলিভিশনে সম্প্রচারিত এক ভাষণে এ হু’মকি দিয়েছেন।

তিনি বলেছেন, হিজবুল্লাহ’র যো’দ্ধারা রোববার ইসরাইলি সামরিক যানে হা’মলা চালিয়ে তেল আবিবকে যে বার্তাটি দিয়েছে তা হলো- “তোমরা যদি হা’মলা করো তাহলে তোমাদের কোনো সীমান্ত এবং একজন সেনারও নিরাপত্তার গ্যারান্টি থাকবে না।”

তিনি স্পষ্ট করে বলেন, লেবাননে হা’মলা চালিয়ে নিরাপদে পালিয়ে যাওয়ার দিন ইসরাইলের জন্য শেষ হয়ে গেছে। গত সপ্তাহে লেবাননের রাজধানী বৈরুতে হিজবুল্লাহর মিডিয়া সেন্টারে ড্রোন হা’মলা চালিয়েছিল ইসরাইল।

জবাবে সাইয়্যেদ নাসরুল্লাহ নিশ্চিতভাবে প্রতিশোধমূলক হা’মলার প্রত্যয় জানিয়েছিলেন। রোববার হিজবুল্লাহ যো’দ্ধারা একটি ইসরাইলি সামরিক যানে হা’মলা চালিয়ে সাইয়্যেদ নাসরুল্লাহর হু’মকি বাস্তবায়ন করে যাতে ওই যানের সকল আরোহী হতাহত হয়।

অবশ্য তেল আবিব দাবি করেছে, হিজবুল্লাহর ওই ক্ষেপণাস্ত্র হা’মলায় তাদের কোনো ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। সাইয়্যেদ নাসরুল্লাহ সোমবারের ভাষণে আরো বলেন, “আমরা এ বিজয়ের জন্য মহান আল্লাহর কাছে কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। তিনি এ হা’মলা পরিচালনার জন্য হিজবুল্লাহ যো’দ্ধাদের প্রশংসা করেন।

তিনি বলেন, ই’হুদিবাদী ইসরাইল তার সীমারেখার ভেতরে হা’মলা না চালানোর ব্যাপারে যে ‘রেড লাইন’ দিয়ে রেখেছিল এই হা’মলার মাধ্যমে তা ভেঙে দেয়া হয়েছে। হিজবুল্লাহ মহাসচিব তেল আবিবকে উদ্দেশ করে বলেন, এখন থেকে তোমরা ১ সেপ্টেম্বর তারিখটির কথা মনে রেখো; কারণ, এই দিনে তোমাদের বিরুদ্ধে আমাদের প্রতিরোধ সংগ্রামের নয়া অধ্যায় সূচিত হয়েছে।

ফেসবুকে লাইক দিন