আবারো সিসি বিরোধী বি’ক্ষোভে উত্তাল মিসর, গ্রে’ফতার ২ সহস্রাধিক

ইমান২৪.কম: মিসরের সামরিক শাসক আবদেল ফাতাহ আল-সিসির পদত্যাগের দাবিতে বি’ক্ষোভ চলছেই। যে বি’ক্ষোভ দমাতে এখন পর্যন্ত দুই হাজার জনেরও বেশি মানুষকে গ্রে’ফতার করেছে

দেশটির নিরাপত্তা বাহিনী। গত সপ্তাহে শুরু হওয়া এ বি’ক্ষোভের পর আজ শুক্রবার নতুন করে দানা বাধা বি’ক্ষোভ দমাতে এ গ্রে’ফতার অভিযান চালানো হয়। মানবাধিকার সংস্থা হিউম্যান রাইটস ওয়াচ জানিয়েছে, এখন

পর্যন্ত ২০৭৫ জনের মতো মানুষকে গ্রে’ফতার করা হয়েছে। যাদের অধিকাংশের বয়স ২৫ এর নিচে। গত ১৭ সেপ্টেম্বর মিসরীয় অভিনেতা ও ব্যবসায়ী মোহাম্মদ আলী সর্বপ্রথম সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেয়া এক

পোস্টে প্রেসিডেন্ট সিসিকে দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত করেন। তিনি তার পোস্টে দেখান, দেশ অর্থনৈতিক সংকটে থাকলেও সিসি কীভাবে বিলাসী জীবন-যাপন করছেন। তার ওই পোস্টের পর সিসির পদত্যাগ চেয়ে করা

হ্যাশট্যাগে সয়লাব হয়ে যায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম। এরপর ২০ সেপ্টেম্বর গণবি’ক্ষোভে অংশ নিতে দেশের প্রধান শহরগুলোতে রাস্তায় নেমে আসে মানুষ। বি’ক্ষোভ দমনে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরাও মাঠে নামে।

গ্রে’ফতার ও টিয়ার গ্যাসের মাধ্যমে গণমানুষের জমায়েতে বাধা দেয় পুলিশ। তাহরির স্কয়ারে মোতায়েন করা হয় নিরাপত্তা বাহিনীর অতিরিক্ত সদস্য। এদিকে দুর্নীতির অভিযোগ অস্বীকার করেছেন প্রেসিডেন্ট সিসি। তিনি

বলেন, তার বিরুদ্ধে আনা এই অভিযোগ ‘মিথ্যা’ এবং ‘উদ্দেশ্য প্রণোদিত’। গত ২০১৩ সালে এক রক্তাক্ত সেনা অভ্যুত্থানের মাধ্যমে মিসরের প্রথম গণতান্ত্রিক প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ মুরসিকে ক্ষমতাচ্যুত করে রাষ্ট্র ক্ষমতায় বসেন সাবেক সেনাপ্রধান সিসি। এরপর থেকেই মিশরের ক্ষমতায় আছেন তিনি। সূত্র- আলজাজিরা

ফেসবুকে লাইক দিন